অনারের পরবর্তী স্মার্টফোনগুলোতে থাকবে স্ন্যাপড্রাগন চিপসেট

মার্কিন নিষেধাজ্ঞার চেইপ পরে কয়েক মাস আগেই নিজেদের সাব-ব্র্যান্ড অনার এর মালিকানা বিক্রি করে দেয় চীনা টেক জায়ান্ট হুয়াওয়ে। প্রায় ১৫ বিলিয়ন ডলারে অনার এর মালিকানা কিনে নেয় চীনা প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ‘জিক্সিন নিউ ইনফরমেশন টেকনোলজি’। হুয়াওয়ের ছত্রছায়া থেকে বেরিয়ে এখন স্বাধীন ব্র্যান্ড হিসেবে গ্লোবাল স্মার্টফোন বাজারে নিজেদের জনপ্রিয়তা ও পরিচিতি বাড়াতে কাজ করে যাচ্ছে অনার। জানা গিয়েছে আগামী ২২ জানুয়ারি বাজারে আসবে স্বাধীন ব্র্যান্ড হিসেবে (মালিকানা বদলের পর) অনার এর প্রথম স্মার্টফোন Honor V40।

এদিকে সপ্তাহখানেক যাবৎ গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে যে, হুয়াওয়ে থেকে আলাদা হওয়ার পর এবার নিজেদের আপকামিং স্মার্টফোনগুলোতে কোয়ালকমের স্ন্যাপড্রাগন চিপসেট ব্যবহারের পরিকল্পনা করছে অনার। সর্বশেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, ইতোমধ্যে কোম্পানি দুটির মধ্যে স্ন্যাপড্রাগন চিপসেট সরবারহের ব্যাপারে একটি চুক্তি হয়েছে, যার ফলে অনারের পরবর্তী স্মার্টফোনগুলোতে দেখা যেতে স্ন্যাপড্রাগন প্রসেসর। তাছাড়া সর্বপ্রথম অনার এর কোন ডিভাইজে ব্যবহার করা হবে স্ন্যাপড্রাগন চিপসেট, তা এখনো জানা যায়নি।

প্রসঙ্গত, যেহেতু অনার এখন আর হুয়াওয়ের অংশ নয় তাই হুয়াওয়ের ওপর আরোপিত মার্কিন প্রশাসনের বিধিনিষেধগুলি অনারের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য নয়। তাই কোয়ালকম বা অন্যান্য বৈদেশিক সংস্থাগুলির অনারের সাথে ব্যবসা করতে কোনো বাধা নেই। এদিকে হুয়াওয়ে থেকে মালিকানা পালাবদলের পর চলতি বছরই বৈশ্বিক স্মার্টফোন বাজারকে লক্ষ্য করে পরিকল্পনা সাজাচ্ছে অনার। সাম্প্রতিক রিপোর্ট অনুযায়ী, আগামী ১০০ মিলিয়ন (১০ কোটির) বেশি স্মার্টফোন বাজারে আনার পরিকল্পনা করছে কোম্পানি। এ ব্যাপারে অনার খুবই সিরিয়াস এবং সাপ্লায়ারদের সাথে আলোচনাও করেছে বলে জানা গিয়েছে।

সেক্ষেত্রে নিজেদের সাপ্লাই চেইন মজবুত করার জন্য এবং উৎপাদন ক্ষমতা বাড়ানোর জন্য বেশ কিছু পদক্ষেপ নিয়ে সামনে এগোচ্ছ অনার। শুধু তাই নয়, কোম্পানি ইতোমধ্যে চীনে নতুন স্টোর স্থাপন করে বাজারে নিজের উপস্থিতি বাড়াতে কাজ করে যাচ্ছে। এমনকি তারা এরই মধ্যে নিজেদের অফিশিয়াল অনলাইন স্টোর Honor Mall চালু করার ঘোষণা দিয়েছে।

 




যেকোনো সমস্যা হলে গ্ৰুপে পোস্ট করলে অথবা পেজে মেসেজ দিলে সমাধান পেয়ে যাবেন 🔥🌺♥️🍀🌷
আমার সাথে যোগাযোগ করার জন্য,

Comment

Previous Post Next Post