ইউটিউবে যোগ হয়েছে ডেটা সেভিং ফিচার

কিছুদিন আগে ইউটিউবে ক্রিয়েটরদের জন্য গুগলের অ্যাকাউন্ট নাম পরিবর্তন না করেই ইউটিউব চ্যানেলের নাম পরিবর্তনের ফিচার যোগ করেছে গুগল। এরই ধারাবাহিকতায় বিশ্বের জনপ্রিয় এই ভিডিও স্ট্রিমিং প্লাটফর্মটিতে আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ ফিচার যোগ করেছে গুগল। সম্প্রতি ইউটিউব এর অ্যান্ড্রয়েড ও আইওএস অ্যাপের সেটিংয়ে যুক্ত হয়েছে অ্যাডভান্সড ভিডিও -রেজ্যুলেশন অপশন। যা ইউটিউব ব্যবহারের সময় ইউজারদের ডেটা খরচ কমাতে কমাবে বলে দাবি করা হয়েছে।

নতুন এই ফিচারে ভিডিও প্লেয়ারের নির্দিষ্ট রেজ্যুলেশনের পাশাপাশি তিনটি আলাদা মোড সেট করা যাবে। এই অপশনটি মূলত চলমান ইন্টারনেট সংযোগের ওপর ভিত্তি করে স্বয়ক্রিয় ভাবে ভিডিও রেজ্যুলেশন প্রোভাইড করবে ইউজারদের। ফোনে ওয়াইফাই সংযোগ না থাকলে ডিফল্টে ৭২০পি থাকবে এবং ডেটা সেভার মোডে থাকবে ৪৮০পি। নেটওয়ার্ক দুর্বল হলে কোয়ালিটি ১৪৪ পিক্সেলেও নেমে যেতে পারে। আবার ভালো নেটওয়ার্কের আওতায় আসলে এইচডি মানের ভিডিও দেখতে পাবেন ইউজাররা।

ইউটিউবের নতুন এই অপশন ব্যবহারকারীদের ডেটা বাঁচাতে কিছুটা সাহায্য করবে বলে মনে করছেন প্রযুক্তিবিদেরা। ইতিমধ্যে অনেকেই ভিডিওর সেটিংস অপশনে “auto” মোড পেয়েছেন। চলমান ভিডিওর সেটিংসে ক্লিক করলে অনেক ব্যবহারকারী ‘কোয়ালিটি ফর কারেন্ট ভিডিও’ অপশনে ‘অটো’, ‘হাইপিকচার কোয়ালিটি’, ‘ডেটা সেভার’, ‘অ্যাডভান্সড’ অপশন পাচ্ছেন। এখান থেকেই মূলত নিজের মনের মতো অপশন নির্বাচন করা যাবে।

ইউটিউবের নতুন এই ফিচারটি আপাতত সার্ভার-সাইড আপডেটের মাধ্যমে রোলাউট শুরু করেছে গুগল। যার ফলে আপনার ইউটিউব অ্যাটি আপডেট করলে হয়তো আপনি এখনই এই ফিচারটি পাবেন না আপনার ফোনে। যদিও বিভন্ন অঞ্চল ও প্লাটফর্ম ভেদে ইতোমধ্যে এই ফিচারটির আপডেট পাঠানোর কাজ শুরু করে দেওয়া হয়েছে কোম্পানির পক্ষ থেকে। খুব শীগ্রই সকল অ্যান্ড্রয়েড ও আইওএস ইউজারদের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে কার্যকরী এই ফিচারটি।

বন্ধুদের সাথে নিউজটি শেয়ার করতে ভুলবেন না। আমরা অনুপ্রাণিত হব 🙂




যেকোনো সমস্যা হলে গ্ৰুপে পোস্ট করলে অথবা পেজে মেসেজ দিলে সমাধান পেয়ে যাবেন 🔥🌺♥️🍀🌷
আমার সাথে যোগাযোগ করার জন্য,

Comment

Previous Post Next Post